একদম কম পুঁজিতে শুরু করুন এই ব্যবসা! ঠিকঠাক করতে পারলে প্রতিদিন কম করেও ৪০০০ টাকা ইনকাম করতে পারবেন

নিজস্ব প্রতিবেদন: পড়াশোনার পরে জীবনের সফলতার দ্বিতীয় ধাপ হচ্ছে চাকরি পাওয়া। কিন্তু আজকাল দেশে যা অবস্থা তাতে বহু মানুষ কিন্তু বেকার অবস্থায় রয়েছেন। বিশেষ করে লকডাউনের পর থেকেই অনেক সংস্থা বন্ধ হয়ে যাওয়ার পরে যারা ছোটখাট চাকরির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তারাও কিন্তু বেকার হয়ে পড়েছেন। এমতাবস্থায় অনেকেই কিন্তু একটি নতুন ব্যবসা শুরু করার কথা ভাবছেন।

কিন্তু ঠিক কি ব্যবসা শুরু করলে তা লাভদায়ক হবে এবং কিভাবে শুরু করা যেতে পারে সেই সম্বন্ধে অনেকের মনেই কিন্তু কোন ধারনা নেই।। যারা নতুন ব্যবসায়ী তাদের কিন্তু অনেক ক্ষেত্রেই অনেক জ্ঞানের প্রয়োজন হয় না হলে ব্যবসায় লোকসান হয়ে যেতে পারে। আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা আলোচনা করতে চলেছি কিভাবে কম মূলধন দিয়ে ব্যবসা শুরু করে আপনারা দৈনন্দিন চার হাজার টাকা পর্যন্ত উপার্জন করতে পারেন।। তাহলে আসুন আর দেরি না করে এই বিশেষ প্রতিবেদনটি শুরু করা যাক।

ঠিক কি ব্যবসা শুরু করবেন?

আজকে আমরা যে ব্যবসাটির কথা আলোচনা করতে চলেছি সেটি হল চিনির পাইকারি দরে ব্যবসা। আমাদের দৈনন্দিন জীবনে চিনির চাহিদা কম নয়। বিভিন্ন রান্নার কাজে, মিষ্টির দোকান থেকে শুরু করে অনেক জায়গাতেই কিন্তু চিনি ব্যবহার করা হয়। সুতরাং কখনোই চিনির অভাব হতে দেওয়া যায় না।

এমন অনেক ব্যবসায়ীরা রয়েছেন যারা অত্যন্ত অল্প সময়ের মধ্যে চিনির ব্যবসা করে সফলতা অর্জন করেছেন। এই ব্যবসাটি যে অত্যন্ত লাভদায়ক তাতে কোন সন্দেহ নেই। তবে এই ব্যবসা শুরু করার আগে আপনাদের কিন্তু প্রয়োজনীয় বিষয়গুলি অবশ্যই জেনে নিতে হবে।।

আপনি যদি এই ক্ষেত্রে চিনি তৈরির কারখানা অর্থাৎ যেখান থেকে চিনি উৎপাদন করা হয় সেখান থেকে চিনি ক্রয় করে খুচরা এবং পাইকারি দরে বিক্রি করেন তাহলে এখান থেকে আপনি প্রতিদিন তিন থেকে চার হাজার টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তবে তার জন্য কিন্তু আপনাদের অবশ্যই সঠিক ফ্যাক্টরি জেনে নিতে হবে।

প্রয়োজনীয় মূলধন এবং উপার্জন:

আপনি এই ক্ষেত্রে সমস্ত ধরনের ট্রান্সপোর্ট খরচ নিয়ে প্রতি কেজি চিনি ৩০ টাকায় কিনতে পারবেন। আপনি একেবারে হোলসেল অর্থাৎ পাইকারি দামে চিনি কিনে বাজারে সেগুলো বিক্রি করতে পারবেন ৪০ থেকে ৪২ টাকা কেজি দরে।

তাহলে এখানে আপনি যদি ১০০ কেজি চিনি এই দামে বিক্রি করতে পারেন তাহলে প্রতিদিন আপনার ইনকাম হবে ১২০০ টাকা। আপনার চিনি বিক্রি করার পরিমাণ যত বাড়বে ঠিক ততটাই বাড়বে কিন্তু উপার্জনের পরিমাণ। ব্যবসা শুরু করার দুই থেকে তিন মাসের মধ্যেই কিন্তু আপনার দৈনন্দিন উপার্জন চার থেকে পাঁচ হাজার টাকা পর্যন্ত চলে যেতে পারে।

কোথা থেকে কিনবেন পাইকারি দরে চিনি?

যদি আপনারা নতুন ব্যবসা শুরু করতে চান সেক্ষেত্রে কিন্তু অবশ্যই আপনাদেরকে এমন একটি ফ্যাক্টরি খুঁজতে হবে যেখানে একেবারে পাইকারি দামে আপনাদেরকে চিনি বিক্রয় করা হবে।। আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা কয়েকটি ঠিকানার সন্ধান আপনাদের দিয়ে দেবো সেই সব ঠিকানায় আপনারা কিন্তু ব্যবসা শুরু করার আগে যোগাযোগ করে নিতে পারেন।।

যোগাযোগ করার ঠিকানা–

1)Vishnu sugar mills limited
21,chakraberia lane
Lajpat Rai sarani
Kolkata – 700020

2)Riga sugar company limited
14,Netaji Subhas road
Murgighata,BBD bagh
Kolkata – 700001

3) Shri Hanuman sugar industries and limited
12, government palace Madhyamgram.
Kolkata-700069

4) Shri Renuka sugars limited
2/6 , Sarat Bose road
Lajpat Rai sarani
Kolkata -700020

5) BalaRampur chini mil
234/3A, FMC Fortuna
AJC Bose road, shreepally
Kolkata – 700020

6)Rama sugar,
67/43, Strand road JoraBagan
Kolkata – 700006.

Back to top button