অফবিটনিউজ

হ’ঠাৎ শা’রীরিক মি’লন ব’ন্ধ হয়ে গেলে মেয়েদের যা হয়, সকল মেয়েদের জানা উ’চিৎ!

নিজস্ব প্রতিবেদন :-সাধারণত অন্যান্য চাহিদার মতন শা-রীরিক চা-হিদা ও প্রকট হয়ে ওঠে আমাদের শ-রীরের মধ্যে বিভিন্ন সময়ে । এবং এই শা-রীরিক চা-হিদা বেশিরভাগ ক্ষেত্রে বৃদ্ধি ঘটে বিয়ের পর । কারন বিয়ের পর নিজের সঙ্গিনীর সাথে প্রতিনিয়ত চলতে থাকে স-হবাস । কিন্তু এখনকার যুগের ছেলে মেয়েদের বিয়ের অপেক্ষা করে না ।তার আগেই একাধিকবার স-ঙ্গমে লি-প্ত হয়ে যায় ।

কিন্তু ধরুন যদি হঠাৎ কোনো কারণে একজন স্বামী এবং স্ত্রীর মধ্যে স-হবাস বন্ধ হয়ে গেল তাহলে মেয়ের শরীরে ঠিক কী কী পরিবর্তন আসতে পারে তা নিয়ে আজকের আমাদের এই প্রতিবেদনটি । দেখুন সঙ্গমের ফলে একটা শা-রীরিক তৃ-প্তি আসে একথা সকলে জানি । তার পাশাপাশি তৃপ্তির পরিমাণ কোথাও যেন মেয়েদের একটু বেশি থাকে । অর্থাৎ স0ঙ্গম হলে মেয়েরা একটু বেশি তৃপ্তি অনুভব করে ।

কিন্তু যদি কোনো কারণে কাজের সূত্রে তার স্বামী বাইরে কোথাও চলে যায় বা অন্য কোনো কারণ জনিত কারণে যদি স-হবাস বন্ধ হয়ে যায় তাহলে একাধিক মা-নসিক প-রিবর্তন দেখা যায় সেই মহিলার মধ্যে । এমনকি প্রতিনিয়ত বাড়তে থাকে মা-নসিক চা-প । যার ফলে তার শরীরে লক্ষ্য করা যায় বেশ কিছু পরিবর্তন । হঠাৎ করে বন্ধ হয়ে যাওয়া স-হবাস এর ফলে নারীরা অত্যন্ত উ-গ্র মে-জাজের হয়ে যায় । অন্য কারো সাথে কথা বলতে তেমন ভাবে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে না ।

এর কারণ, স’হবা’স করার সময় থেকে যে ফি’ল গু’ড কে’মিক্যাল এ’ন্ডোর্ফিন ও অ’ক্সিটোসিন নিঃ’সরিত হয়, তা ব’ন্ধ হয়ে যাওয়া। ই’উরিনারি ট্র্যা’ক্ট ই’নফেকশন হওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়, সঙ্গমের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে মূত্রনালীতে সংক্রমণ হতে পারে। প্র-স্রাবের সময় জ্বা-লায-ন্ত্রণা শুরু হতে পারে তখন। কিন্তু স-হবাস করা ব’ন্ধ হয়ে গেলে ই’উরিনারি ট্র্যা’ক্ট স’ম্ভাবনা অনেকটাই কমে যায়।

এর পাশাপাশি রো-গ-প্রতিরোধক্ষমতা অনেকটা কমেছে যদি হঠাৎ করে স-ঙ্গম বা স-হবাস বন্ধ হয়ে যায়। সহ-বাস প্রতিনিয়ত করার ফলে শ-রীরে রো-গ জী-বাণু প্রবেশ করা কঠিন হয়ে ওঠে । কিন্তু যদি এটা হঠাৎ করে বন্ধ হয়ে যায় তাহলে স-র্দি-কা-শির মতন সামান্য ছোটখাটো বিষয়গুলোকে প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে আসে ধীরে ধীরে ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button